1. admin@protidineralo.news : admin :
বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ০৭:৩২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
নন্দীগ্রাম পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে ৮লক্ষ টাকা ব্যয়ে পিট স্লাব বিতরন করলেন পৌর মেয়র নন্দীগ্রাম থানা পুলিশের মাদকবিরোধী অভিযানে গ্রেফতার ৩ শৈলকুপায় কোটিপতি স্কুল শিক্ষিকার বিরুদ্ধে কর ফাঁকির অভিযোগ ঝিনাইদহে গভীর রাতে শীতার্তদের মাঝে জেলা জজ’র কম্বল বিতরন র‌্যাব ৬’র অভিযানে শৈলকুপায় আলোচিত হত্যা মামলার আসামি গ্রেফতার শৈলকুপায় দুই আ’লীগ নেতা বহিস্কার কৃষিতে সম্ভাবনাময় গাইবান্ধার চরাঞ্চল    _______জেলা প্রশাসক- মো.অলিউর রহমান নন্দীগ্রামে কৃষি সেবা ও প্রযুক্তি সম্প্রসারণে একজন আদনান বাবু কালীগঞ্জে পরাজিত মেম্বর প্রার্থীর লাশ উদ্ধার! সাময়িক বরখাস্তকৃত দুই ব্যাংক কর্মকর্তা ও এক কর্মচারীর বিরুদ্ধে ঝিনাইদহ আদালতে মামলা

তাড়াশে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জমি দখল

প্রশাসন
  • সময় : বৃহস্পতিবার, ২৩ ডিসেম্বর, ২০২১
  • ২০ বার পঠিত

তাড়াশ প্রতিনিধি:

সিরাজগঞ্জের তাড়াশে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে ইদ্রিস আলী নামের এক ব্যক্তির ৬৪ শতাংশ জমি দখলের অভিযোগ উঠেছে প্রতিপক্ষের বিরুদ্ধে। বুধবার (২২ডিসেম্বর) বিকালে উপজেলার পৌর এলাকার ভাঁদাস গ্রামে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জমি দখলের ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগী কৃষক ইদ্রিস আলী ও মামলা সুত্রে জানা যায়, ভাদাস মৌজার আর,এস ৯২ খতিয়ানের আর,এস ৪০৮ দাগে আমার শশুরের দেয়া ১৯৯৮ সালে ৪৮১৭নং হেবাবিল এওয়াজ নামা দলিলমুলে পাওয়া জমি ভোগ দখল করে আসছিলেন ইদ্রিস আলী। কিন্ত একই গ্রামের আব্দুল কুদ্দুসের ছেলে রুহুল আমিন (২৭), রবিউল ইসলাম (২৫) আমিরুল ইসলাম গংয়েরা জোরপুর্বক তার জমি জবরদখল করার চেষ্টা করে। পরে সিরাজগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করা হয়। সে মামলা চলমান রয়েছে। এদিকে রুহুল আমিন, রবিউল ইসলাম ও আমিরুল ইসলাম গংয়েরা আবারো জমি দখলের চেষ্টা করলে। বিজ্ঞ আদালতে গত ২৩ সেপ্টেম্বর ১৪৪ ধারায় একটি মামলা দায়ের করলে আদালত বিষয়টি আমলে নিয়ে তাড়াশ থানা পুলিশকে স্থিতিশীল অবস্থা বজায় রাখতে ব্যবস্থা ও উপজেলা সহকারী কমিশনারকে (ভূমি) তদন্ত করে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেয়। এরপর তাড়াশ থানার এএসআই নুর নবী ঘটনাস্থলে গিয়ে স্থিতিশীল অবস্থায় উভয়পক্ষকে শান্ত থাকার জন্য বলেন। বৃহস্পতিবার সকালে সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ১৪৪ ধারা ভঙ্গ করে ও আদালতে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে সেই বিবাদ জমি দখল করে রেখেছে। সেখানে তারা ধান ও খড়ের কাজ করছেন।

কৃষক ইদ্রিস আলী আরো জানান, বুধবার বিকালে আদালতের নির্দেশ অমান্য করে রুহুল আমিন, রবিউল ইসলাম,আমিরুল ইসলাম তার অনুসারীরা আমার মালিকীয় ৬৪ শতাংশ দখল করেছে। আমার দলিলসহ সব কাগজপত্র রয়েছে।

অভিযুক্ত রুহুল আমিন, রবিউল ইসলাম ও আমিরুল ইসলাম বলেন, এই জমি অন্য লোকের কাছে ক্রয় করেছি। আমি কারো জমি দখল করিনি। আদালতের নিষেধ আছে তাতে সমস্যা কি ? আদালতে আগামী মাসে হাজিরা আছে সেদিনই বুঝবো।

এ ব্যাপারে তাড়াশ থানার এএসআই মাহবুবুর রহমান বলেন, আদালতের নির্দেশ অমান্য করে জমিতে প্রবেশ করে দখল করছে অভিযোগ পেয়ে বিবাদীদের নিষেধ করা হয়েছে। এছাড়া দুই পক্ষের মধ্যে ৬৪ শতাংশ জমির বিরোধ নিয়ে আদালতে মামলা চলছে। শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখতে উভয়পক্ষকে নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন:

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরও খবর